>
Uncategorized

২২ বছরে পা অভিজিতের পুজো

মুম্বইয়ে দুর্গাপুজো মানে শুধু লোখান্ডওয়ার পুজো, অনেক মুম্বইবাসীর কাছেই দুর্গাপুজো মানেই গায়ক অভিজিতের পুজো৷ লোখণ্ডওয়ালার এ পুজোকেই ‘সেরা পুজো’ বলে দাবি করছেন গায়ক৷ এ বছর এই পুজো ২১ পূর্ণ করে ২২ বছরে পা দিল। কিন্তু আমরা এমন ভাবে পালন করছি যাতে মনে হয় সিলভার জুবিলি। আর এখন থেকে প্রত্যেক বছরই এমন জমজমাট সেলিব্রেশন হবে।
এমনিতেই আমি হুল্লোড় করতে ভালবাসি। অনেক লোক আসবে, মাইক বাজবে, ঢাক বাজাব, ধুনুচি নাচের কম্পিটিশন হবে— এ সব না হলে আর দুর্গাপুজোয় মজা কী বলুন? আমি ২১ বছর ধরে মুম্বইতে পুজো করছি।মায়ের পুজো এগিয়ে এলেই মনটা মাঝে মাঝে দুটো ডানা লাগিয়ে উড়ে চলে সুদূর পশ্চিমবঙ্গে।

avijit durga puja

আমার পুজো দেখতে দূর-দূরান্ত থেকে বহু মানুষ আসেন। মুম্বইয়ের বাঙালিরা তো বটেই দূর-দূরান্ত থেকে মানুষ আসেন এই পুজো দেখতে।তবে মুম্বইয়ের দুর্গাপুজো কিন্তু জমজমাট তারকাদের উপস্থিতিতে৷

সাধারণ মানুষ তো আসেই তারকা দেখার টানে, বলিউডের বেশ কয়েকজন নিয়মিত উপস্থিত থাকেন৷ ইন্ডাস্ট্রির অনেক বন্ধু আসেন। আসলে তাঁদের জন্যই বোধহয় কোথাও দায়িত্ব অনেকটা বেড়ে যায়।

এমনিতেই খুব ধুমধাম করে পুজো করি আমি। প্রতি বছর দুর্গা মায়ের আশীর্বাদে তা আরও বাড়ানোর চেষ্টা করছি।

 

 

আমার প্যান্ডেলে কিছু স্পেশ্যালিটি আছে। যেমন ধরুন ঢাক বাজানো। ঢাকিরা তো আসেনই, গানে গানে তিনি মাতিয়ে তোলেন পুজোর চারদিন৷সুযোগ পেলে ছাকীর হাত থেকে কাঠি নিয়ে দিব্য বাজাতে শুরু করেন ঢাক। তার পরে ধরুন ধুনুচি নাচ। রীতিমতো কম্পিটিশন হয়। ছেলে, মেয়ে বলে আলাদা কিছু নয়। সকলে পার্টিসিপেট করে। আর আছে ভোগ। এমনিতে খিচুড়ি, লাবড়া, আলুরদম, চাটনি, মিষ্টি থাকে। কোনও কোনও দিন নিরামিষ পোলাওয়ের ব্যবস্থাও করি।

avijit-durga-puja

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *